জাপানে এক বাংলাদেশির করোনা শনাক্ত

জাপানের রাজধানী টোকিওর হিগাশি জুজো এলাকায় বসবাসরত একজন প্রবাসী বাংলাদেশির করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। স্থানীয় কয়েকটি বাংলাদেশি সূত্র আজ শনিবার জানিয়েছে, তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

জানা গেছে, আক্রান্ত যুবক জাপানি ভাষা শিক্ষার স্কুলের একজন ছাত্র এবং হিগাশি জুজোর একটি ফ্ল্যাটে আরও তিনজনের সঙ্গে থাকতেন। অন্য তিনজন পরীক্ষায় নেগেটিভ প্রমাণিত হলেও তাদের স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টিনে থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য টোকিওর সেই এলাকাটিতে অনেক বাংলাদেশির বসবাস। জাপানে করোনাভাইরাস সংক্রমণের সংখ্যা ১০ হাজার ছাড়িয়ে গেলেও এবারই প্রথম একজন বাংলাদেশির সংক্রমিত হওয়ার খবর পাওয়া গেল।

এদিকে জাপানে জরুরি অবস্থা ঘোষণার পর আজ প্রথম সাপ্তাহিক ছুটির দিনে দেশের বড় শহরগুলোর অধিকাংশ ছিল ফাঁকা। টোকিও, ওসাকা ও কিওতোসহ দেশের অন্যান্য পর্যটন কেন্দ্রগুলো ছিল জনশূন্য। পাশাপাশি বিনোদন কেন্দ্রগুলোতেও মানুষের ভিড় তেমন দেখা যায়নি। জাপানের জনগণ অসুবিধা হওয়া সত্ত্বেও যতটা সম্ভব কম বাইরে বের হওয়ার জন্য কর্তৃপক্ষের জানানো অনুরোধ দৃশ্যত মেনে চলতে শুরু করেছে।

রাজধানী টোকিওতে গতকাল করোনা সংক্রমণের হিসাব প্রথমবারের মতো ২০০ অতিক্রম করে যাওয়ার পর আজ আবারও কিছুটা নিচে নেমে এসেছে। টোকিওতে আজ ১৮১টি নতুন সংক্রমণ চিহ্নিত করা হয়। আজকের হিসাব নিয়ে জাপানের রাজধানীতে মোট সংক্রমণের সংখ্যা এখন দাঁড়িয়েছে ২৯৭৫টি।

এদিকে গত এক সপ্তাহে দৈনিক সংক্রমণ চিহ্নিত হওয়ার হিসাবে ওঠানামার ব্যাপারে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সংক্রমণ সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছে যাওয়ার ইঙ্গিত এটা হয়তো দিচ্ছে। জনগণ স্বাস্থ্য সেবা বিধি মেনে চলার পাশাপাশি একে অন্যের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ যতটা সম্ভব এড়িয়ে চললে আগামী এক কিংবা দুই সপ্তাহ সময়ের মধ্যে ধীর অগ্রগতি লক্ষ্য করা যেতে পারে বলে তাঁরা আশা করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *