গবেষণার জন্য বাংলাদেশকে করোনার ওষুধ অ্যাভিগান ফ্রি দেবে জাপান

করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় কতটুকু কার্যকর তা ক্লিনিক্যাল পরীক্ষার জন্য বাংলাদেশসহ ৪৩ দেশকে অ্যান্টি-ফ্লু ওষুধ অ্যাভিগান ফ্রি দেবে জাপান। শুক্রবার জাপানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী তোশিমিৎসু মোতেগি এ কথা বলেছেন। খবর কিয়োদো নিউজের।চলতি মাসের ৬ তারিখ থেকে এই ওষুধের চালান পাঠানো শুরু হতে পারে। এর আগে মোতেগি বলেছেন যে, গত সপ্তাহ থেকে এই ওষুধ বিভিন্ন দেশে পাঠানো হবে।জাপানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছিলেন, ৮০টি দেশ অ্যাভিগানের ব্যাপারে আগ্রহ দেখিয়েছে, তবে ৩৮ দেশে এটি পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে। দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, পরে ওই তালিকায় বাংলাদেশ, ডমিনিকান রিপাবলিক, লাওস, কাতার ও উজবেকিস্তানের নাম যোগ করা হয়েছে।মোতেগি বলেন, প্রত্যেকটি দেশ গবেষণার উদ্দেশ্যে ২০ থেকে ১০০ জন মানুষকে চিকিৎসা দিতে পারবে এই ওষুধ দিয়ে। তিনি বলেন, করোনার একটি ‘চিকিৎসা তৈরির জন্য ব্যক্তিগত খাত এবং আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে আমরা সহায়তা করবো।হালকা করোনার লক্ষণ আছে এমন রোগীদের ক্ষেত্রে অ্যাভিগান কার্যকর প্রমাণিত হয়েছে চীনের বিজ্ঞানীরা এমনটা বলা পর থেকেই এটি নিয়ে ক্লিনিক্যাল গবেষণা চালাচ্ছে জাপান। তবে এই ওষুধ গর্ভবতী নারীদের দেয়া যাবে না, কারণ এতে বিকলাঙ্গ সন্তান জন্ম হতে পারে।এই ওষুধ ফাভিপিরাভির নামেও পরিচিত। ওষুধটি তৈরি করেছে ফুজিফিল্ম হোল্ডিং করপোরেশনের একটি প্রতিষ্ঠান।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *